যশোর প্রতিনিধি : চৌগাছায় টাকা ধার দেবার কথা বলে বাড়ি ডেকে গৃহবধুকে ধর্ষনটাকা ধার দেওয়ার কথা বলে নিজ বাড়িতে ডেকে এক গৃহবধূকে (২৫) ধর্ষণ করা হয়েছে বলে অভিযোগ করা হচ্ছে।গত বুধবার সকালে চৌগাছার নারায়ণপুর ইউনিয়নের বাদেখানপুর গ্রামের মিজানুর রহমান (৫৫) নামে এক ব্যক্তি তাকে ধর্ষণ করেন বলে অভিযোগ। পরদিন এ ঘটনায় চৌগাছা থানায় মামলা হয়। অভিযুক্ত মিজানুর পলাতক রয়েছেন।এক সন্তানের জননী ওই নারী মামলার অভিযোগে বলেন, ‘গত ২৪ ফেব্রুয়ারি সকাল সাড়ে সাতটার দিকে ফোনে প্রতিবেশী মিজানুরের কাছে সমিতির কিস্তি দেওয়ার জন্য এক হাজার টাকা ধার চাই। সোয়া দশটার দিকে মোবাইল ফোনে কল দিয়ে তিনি টাকা নিতে তার বাড়িতে ডাকেন। সেখানে যাওয়ার পর ঘরের মধ্যে ডেকে অনেক টাকার প্রলোভন দেখিয়ে আমাকে কুপ্রস্তাব দেন। রাজি না হয়ে ঘর থেকে বের হওয়ার চেষ্টা করলে তিনি ঘরের দরজা বন্ধ করে আমাকে ধর্ষণ করেন। আমার চিৎকারে তার স্ত্রী মনিবালা বেগম (৪৫) ও ভাইয়ের ছেলে তারিফ (২০) এসে ঘটনা দেখতে পান।এরপর তারা আমাকে মারধর করেন এবং লোকজন জড়ো হলে চুরির অপবাদ দেন। লোকলজ্জা ও ভয়ে তাৎক্ষণিক বিষয়টি কাউকে বলতে পারিনি। ওই ফাঁকে মিজানুর পালিয়ে যান।’এদিকে, এই ঘটনা জানাজানি হলে ওই নারীকে তার স্বামী বাড়িতে উঠতে দেননি। পরে তিনি তার মায়ের আশ্রয়ে থেকে পরদিন বৃহস্পতিবার চৌগাছায় থানায় মামলা করেন।চৌগাছা থানার ইনসপেক্টর (তদন্ত) গোলাম কিবরিয়া বিষয়টির সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ভিকটিমের ডাক্তারি পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে। মামলা রেকর্ড হয়েছে।




Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *