সমাজের আলো। ।কিংবদন্তি বলিউড অভিনেতা মিঠুন চক্রবর্তীর ছেলে ও অভিনেতা মহাক্ষয় ওরফে মিমোর বিরুদ্ধে ধর্ষণ, প্রতারণা ও জোর করে গর্ভপাতের অভিযোগ এনে পুলিশে মামলা রুজু করা হয়েছে৷ নির্যাতিতার লিখিত বয়ানে অভিযোগ করা হয়েছে ২০১৫ সাল থেকে রিলেশনশিপে ছিলেন তিনি মহাক্ষয়ের সঙ্গে৷ এই সময়েই মহাক্ষয় নির্যাতিতাকে বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে সহবাস করেছেন৷ পুলিশের কাছে আরও অভিযোগ করা হয়েছে ২০১৫ সালে মহাক্ষয় তাকে বাড়িতে ডেকে ঠান্ডা পানীয়তে মাদক মিশিয়ে অনুমতি ছাড়াই তার সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক করেছিলেন। এরপরেই বিয়ের প্রতিশ্রুতি দিয়ে প্রায় ৪ বছর লাগাতার ধর্ষণ করেছিলেন৷ যা মানসিক ভাবে বিধ্বস্ত করেছে পীড়িতাকে৷ লাগাতার শারীরিক সম্পর্কের ফলে গর্ভবতী হয়ে যান ওই নারী৷ মিমো বাধ্য করেছিলেন গর্ভপাত করতে। বেশ কিছু ওষুধও খাইয়েছিলেন এমনই গুরুতর অভিযোগ করা হয়েছে৷ নির্যাতিতা এও অভিযোগ করেছেন যে মহাক্ষয় ও তার মা যোগিতাবালি ভয় দেখিয়েছিলেন, বিষয়টি ধামা চাপা দিতে চেয়েছিলেন৷ নির্যাতিতা এই মামলায় এর আগেই এফআইআর করার চেষ্টা করেছিলেন কিন্তু কোনও কাজই হয়নি৷ এরই মাঝে নির্যাতিতা দিল্লিতে স্থানান্তরিত হয়ে গিয়েছিলেন৷ দিল্লির রোহিণী আদালতে এফআইআর দায়েরের আবেদন জানিয়েছিলেন৷ প্রাথমিক প্রমাণাদির পরে আদালত এফআইআর করার নির্দেশ দিয়েছে৷ এরপরেই মুম্বইয়ের এক থানায় অভিযোগ করা হয়েছে ৷


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *